মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ করার উপায়

ফেসবুক একটি জনপ্রিয় যোগাযোগ মাধ্যম আর মেসেঞ্জার যেন ফেসবুকের প্রান।ফেসবুক ব্যাবহার করে অথচ মেসেঞ্জার ইন্সটল নেই এমন মানুষের সংখ্যা পাওয়াই দুরূহ।আপনারা যারা মেসেঞ্জার ইউস করেন তারা কি কখনো মেসেঞ্জার লগ আউট করতে পেরেছিলেন?যদি না করে থাকেন তবে মেসেঞ্জারে গিয়ে একটু চেষ্টা করে দেখুন তো,পারছেন কি না?
অনেকেই এই ফেসবুক কে কিছুদিন বন্ধ রেখে একটু শান্তিতে নিজের কাজকর্মে মন দিতে চায় কিন্তু যারা মেসেঞ্জার ব্যাবহার করেন তাদের ক্ষেত্রে দেখা যায় ফেসবুক ডিএক্টিভ করলেও মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ হয় না,এজন্য ফেসবুক ডিএক্টিভের পরও মেসেঞ্জারে সহজেই বন্ধুরা মেসেজ পাঠাতে পারে,যার ফলে বিষয়টা দাড়ায় “যেই লাউ সেই কদু”।ফেসবুক ডিএক্টিভের পরও যেন স্বস্তি নেই তার জন্য প্রয়োজন মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ,অথচ মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ করতে গিয়ে বিব্রত হয় নি এমন মানুষের সংখ্যা খুবই কম,তাহলে আসুন আজ আমি আপনাদের মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ করার উপায় বলে দেই।

মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ করার জন্য এখনই মেসেঞ্জারে গিয়ে সকল অপশন চেক করুন,ডিএক্টিভের কোনো অপশন পাবেন না,অবাক হচ্ছেন তো?অবাক হবারই কথা,তাহলে কি করে ডিএক্টিভ হবে মেসেঞ্জার এই প্রশ্নই তো সবার মনে?
তাহলে ধারনা ক্লীয়ার করে দেই,
মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ করার পূর্বশর্ত হলো ফেসবুক ডিএক্টিভ করা,আশা করি সকলেই ফেসবুক আইডি ডিএক্টিভ করার উপায় জানেন।যারা জানেন না তাদের জন্য বলছি,ফেসবুক ডিএক্টিভ করার জন্য-
প্রথমেই সেটিংস এন্ড প্রাইভেসি অপশনে প্রবেশ করবেন।
দ্বিতীয়ত একাউন্ট ওনারশীপ এন্ড কন্টোল এ প্রবেশ করুন।
তৃতীয়ত ডিএক্টিভেশন এন্ড ডিলেশন এ প্রবেশ করুন।
সবশেষে আপনার পাসওয়ার্ড চাইবে,পাসওয়ার্ড প্রবেশ করিয়ে কিছু অপশন থাকবে সেগুলোর যে কোনো একটাতে ক্লিক করে ডিএক্টিভ করে ফেলুন।
ব্যাস হয়ে গেল,ফেসবুক ডিএক্টিভ এবার আপনি মেসেঞ্জারে আসুন,তখনও দেখবেন মেসেঞ্জার চালু রয়েছে,
মেসেঞ্জারে সেটিংস এ গিয়ে এবার দেখুন”ডিএক্টিভ মেসেঞ্জার” একটা অপশন আছে,সেটাতে ক্লিক করে ডিএক্টিভ করে ফেলুন।

হয়ে গেল মেসেঞ্জার ডিএক্টিভ এবার কেউ আর নক করতে পারবে না,আপনি শান্তিমত কাজে মনোযোগ দিতে পারবেন,আর্টিকেলটি পড়ে উপকার পেলেন কি না অবশ্যই জানাবেন।
সুস্থ থাকুন।

Share This:
Close Menu

Content

Share This: